সংযুক্ত আরব আমিরাতের উদ্যোগে পরিচালিত হতে যাচ্ছে ‘এমিরেটস লুনার মিশন’। এই মিশনের অধীনেই আরব আমিরাতের পক্ষ থেকে চাঁদের মাটিতে অভিযান পরিচালনা করা হবে। দেশটির ভাইস প্রেসিডেন্ট, প্রধানমন্ত্রী এবং দুবাইয়ের প্রশাসক শেখ মোহাম্মদ বিন রাশিদ আল মাকতুম আজ ‘এমিরেটস লুনার মিশন’ এর ব্যাপারে আনুষ্ঠানিকভাবে ঘোষণা দিয়েছেন।

এই অভিযানের মাধ্যমে আরব অঞ্চলের প্রথম কোনো দেশ হিসেবে চন্দ্রাভিযান পরিচালনা করতে যাচ্ছে আরব আমিরাত।

চন্দ্রাভিযানের জন্যে যে মহাকাশযান ব্যবহার করা হবে, সেটা সম্পূর্ণ আরব আমিরাতের মাটিতেই তৈরি করা হবে। এছাড়াও এই মহাকাশযান তৈরি করার জন্যে যেসব বিশেষজ্ঞ, গবেষক বা ইঞ্জিনিয়াররা কাজ করছে, তাদের সবাই সংযুক্ত আরব আমিরাতের নাগরিক। এই অভিযান সফল হলে যুক্তরাষ্ট্র, সোভিয়েত ইউনিয়ন এবং চায়নার পরে পৃথিবীর চতুর্থ রাষ্ট্র হিসেবে চাঁদের মাটিতে মহাকাশযান পাঠাবে আরব আমিরাত।

আধুনিক দুবাইয়ের নির্মাতা, প্রয়াত শেখ রাশিদ বিন সাঈদ আল মাকতুমের নাম অনুসারে এই অভিযানের রোভারের নাম রাখা হয়েছে ‘রাশিদ’। প্রজেক্টের সাথে জড়িত কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ২০২১ সালের মধ্যে এই রোভারের ডিজাইন চূড়ান্ত করা হবে। আর ২০২২ সালে এর নির্মাণ কাজ শুরু হবে। সংশ্লিষ্টরা আশা করছেন, ২০২৪ সালের মধ্যেই চাঁদের উদ্দেশ্যে মহাকাশযান পাঠাতে পারবে সংযুক্ত আরব আমিরাত।